প্রয়োজনীয় উপকরণঃ

১। পোলাও এর চাল – ২ কাপ( চাইলে বাসমতী অথবা আতপ চাল ও ব্যাবহার করতে পারেন)
২। চিনি- ১ কাপ (স্বাদ অনুযায়ী চাইলে বেশী দিতে পারবেন)
৩। আস্ত এলাচ- ৩-৪ টি
৪। লবঙ্গ- ৩-৪ টি
৫। দারুচিনি- ২ টি
৬। ঘি/মাখন- ১/২ কাপ
৭। পানি-২.৫ কাপ
৮। গুঁড়া দুধ- ২-৩ টেবিল চামচ
৯। জর্দার রঙ গোলানো পরিমান মতো
১০। আনারস অথবা কমলার রস/ অরেঞ্জ এছেন্স পরিমাণ মতো (টক হলে কম ব্যাবহার করবেন)
১১। কাঠ বাদাম, পেস্তা বাদাম কুচি, মোরব্বা সাজানোর জন্য
১২। বেবি সুইটস সাজানোর জন্য

প্রস্তুত প্রণালীঃ

প্রথমে পোলাও চাল গুলো ২০-২৫ মিনিট ঠাণ্ডা পানিতে ভিজিয়ে রাখতে হবে। এরপরে চালটা পানি ঝরিয়ে নিতে হবে। এখন একটি পাত্রে ২.৫ কাপ পানি দিয়ে ফুটতে শুরু করলে পানি ঝরিয়ে রাখা চাল গুলো ও সামান্য কমলা অথবা হলুদ জর্দা রঙ দিয়ে দিতে হবে। চাল গুলো ৮০-৯০% সিদ্ধ হয়ে গেলে পানি ঝরিয়ে নিতে হবে। আপনি চাইলে বাসমতী চাল অথবা আতপ চাল ও ব্যাবহার করতে পারেন। এখন একটি ননস্টিক পাত্র অথবা কড়াইয়ে ১/২ কাপ ঘি অথবা মেলটেড মাখন নিয়ে তাতে কিছু কুচি করা বাদাম, ৩-৪ টি এলাচ, ৩-৪ টি লবঙ্গ ও ২ টি দারুচিনি দিয়ে অল্প সময় নাড়তে হবে, এরপরে পানি ঝরানো সিদ্ধ চাল গুলো দিয়ে দিতে হবে ও নাড়তে হবে। ২-৩ মিনিট নাড়ার পরে ১/২ কাপ চিনি ও এক চিমটি লবণ দিয়ে দিতে হবে। চিনি দেয়ার পরে হাল্কা পানি বের হবে, এসময় চুলার আঁচ আস্তে দিয়ে নাড়তে হবে যাতে পাত্রের নীচে লেগে না যায় । এ পর্যায়ে ২-৩ টেবিল চামচ গুড়া দুধ দিলে টেস্টটা ভালো আসে। এভাবে ১০-১৫ মিনিটের মধ্যে পানি শুকিয়ে ঝরঝরা হয়ে আসলে, আনারস অথবা কমলার রস অথবা অরেঞ্জ এছেন্স ১ চা চামচ দিয়ে ভালো করে নেড়েচেড়ে নামিয়ে ফেলুন। গরম অবস্থায় জর্দাগুলো একটু কম ঝরঝরা লাগবে কিন্তু ঠাণ্ডা হলে একদম পারফেক্ট ঝরঝরা হয়ে যাবে। ঠাণ্ডা হলে একটি পাত্রে নামিয়ে উপর থেকে কাঠ বাদাম কুচি, পেস্তা বাদাম কুচি, মোরব্বা ও বেবি সুইটস দিয়ে পরিবেশন করুন মজার শাহী জর্দা।