ফেনীতে জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার ৫ কেন্দ্রে ১৪৪ ধারা

ফেনী: সারা দেশের মতো ফেনীতেও জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা শুরু হয়েছে। এবছর ৩৫ কেন্দ্রের ৩০ হাজার ৩০৪ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেছে। এছাড়া অধিক নিরাপত্তার জন্য পাঁচ কেন্দ্রে ১৪৪ ধারা জারি করেছে জেলা প্রশাসক।

বুধবার (১ নভেম্বর) সকাল ১০টা থেকে পরীক্ষা শুরু হয়। তিন ঘণ্টাব্যাপী পরীক্ষা শেষ হবে দুপুর ১টায়।

জেএসসি’র ২৬ কেন্দ্রে ২৩ হাজার ৮শ’ ৮জন পরীক্ষার্থী ও জেডিসি’র ৯ কেন্দ্রের ৬ হাজার ৪শ’ ৯৬ জন পরীক্ষার্থী। গতবছরের চেয়ে এবছর ৯শ’ ২৯ পরীক্ষার্থী বেশি। ২০১৬ সালের জেএসসি পরীক্ষার্থী ছিলো ২৩ হাজার ১শ’ ৮৪ জন ও জেডিসি ৬ হাজার ১শ’ ৯১ জন।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, সদর উপজেলায় জেএসসি’র ১০ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ৯ হাজার ৩শ’ ৯০ জন। জেডিসি পরীক্ষার্থী ফেনী আলিয়া মাদ্রাসা কেন্দ্রে এক হাজার ২শ’ ১০ জন ও বিরিঞ্চি ছুফিয়া নুরিয়া সিনিয়র মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৬শ’ ২ জন। 

সোনাগাজী উপজেলায় জেএসসি’র ৪ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ৩ হাজার ৯শ’ ২১ জন। জেডিসি পরীক্ষার্থী সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৭শ’ ১৫ জন ও বখতারমুন্সি ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৫শ’ ১১ জন।

দাগনভূঁঞা উপজেলায় জেএসসি’র ৪ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ৪ হাজার ১ জন। জেডিসি পরীক্ষার্থী আজিজিয়া ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৬শ’ ৬৪ জন ও  কোরাইশমুন্সী আলিম মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৫শ’ ৬০ জন। 

ছাগলনাইয়া উপজেলায় জেএসসি’র ৫ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ২ হাজার ৮শ’ ৩৩ জন ও জেডিসি পরীক্ষার্থী ছাগলনাইয়া ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ১ হাজার ২শ’ ৪১ জন। ফুলগাজী উপজেলায় জেএসসি’র ২ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ২ হাজার ৪শ’ ১৫ জন ও জেডিসি পরীক্ষার্থী মুন্সিরহাট ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ৩শ’ ২২ জন।

পরশুরাম উপজেলায় পরশুরাম পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের জেএসসি’র পরীক্ষার্থী ১ হাজার ২শ’ ৪৮ জন ও পরশুরাম ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে জেডিসি পরীক্ষার্থী ৬শ ৭১ জন।

জেলা প্রশাসক মনোজ কুমার রায় অধিক নিরাপত্তার জন্য ফেনী সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র, ফেনী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র, ফেনী গার্লস ক্যাডেট কলেজ কেন্দ্র, ফেনী আলিয়া মাদ্রাসা কেন্দ্র ও বিরিঞ্চি ছুফিয়া নুরিয়া সিনিয়র মাদ্রসাসহ পাঁচ কেন্দ্রের ১৪৪ ধারা জারি করেন।

এছাড়াও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকদের নেতৃত্বে প্রতি উপজেলায় তিনজন করে একটি টিম ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নেতৃত্বে ভিজিলেন্স টিম গঠন করা হয়।

এদিকে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার উপলক্ষে জেলা পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুলিশের মোবাইল টিম ছাড়াও প্রতি কেন্দ্রের একজন ইন্সপেক্টরের নেতৃত্বে বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১০৫০ ঘণ্টা, নভেম্বর ০১, ২০১৭

এসএইচডি/জিপি



সূত্র :: বাংলা নিউজ ২৪